২৯৬ রানে গুটিয়ে গেল বাংলাদেশ

সংগৃহীত ছবি

দৈনিক আজকালের দপর্ণ:

শঙ্কা ছিল ফলোঅনে পড়ার। কিন্তু সেটি কাটিয়ে ওঠতে পেরেছে বাংলাদেশ দল। লিটন দাস এবং মেহেদী হাসান মিরাজের ব্যাট ভর করে ফলোঅনের লজ্জা এড়িয়েছে। ভয়াবহ বিপর্যয়ে পড়া বাংলাদেশ দলকে টেনে নিয়ে গেছেন তারা। সপ্তম উইকেট জুটিতে দুজন মিলে যোগ করেছেন ১২৬ রান। এই দুজনের দৃঢ়তায় শেষ পর্যন্ত ২৯৬ রান সংগ্রহ করে স্বাগতিকরা।

চট্টগ্রাম টেস্টের পর ঢাকাতেও টানা দ্বিতীয় ফিফটি তুলে নিয়েছেন লিটন দাস। কর্নওয়ালের বলে আউট হওয়ার আগে লিটন করেছেন ৭১ রান। এ ছাড়া মেহেদী হাসান মিরাজের ব্যাট থেকে আসে ৫৭ রান। তবে এই জুটির পর তাসের ঘরের মতো ভেঙে পড়ে টেলএন্ডাররা। ৮ বলের ব্যবধানে ৩ উইকেট হারিয়ে চা-বিরতির আগে ঘুরে দাঁড়ানোর আগেই আশা শেষ হয়ে যায় টাইগারদের। নাঈম হাসান ফিরে যান শূন্য রানে। রাহী করেন ১ রান। আর তাইজুল ইসলাম অপরাজিত থাকেন ১৩ রানে। শেষ পর্যন্ত ৩০০ পেরোতে পারেনি বাংলাদেশ।

ক্যারিবীয়দের হয়ে স্পিনার রাকিম কর্নওয়েল নিয়েছেন ৫টি উইকেট। এ ছাড়া গ্যাব্রিয়েল ৩টি এবং জোসেফ নেন ২টি উইকেট।

এর আগে তৃতীয় দিনের খেলা শুরু করেন আগের দিনের দুই অপরাজিত ব্যাটসম্যান মুশফিক ও মিঠুন। ৮৬ বলে ১৫ রান করে ফিরে যান মিঠুন। অন্য প্রান্তে ক্যারিয়ারের ২২তম ফিফটি তুলে নিয়ে আউট হয়েছেন মুশি। তবে যেতে পারেননি বেশিদূর। ৫৪ রানেই শেষ হয় তার ইনিংস। এই দুই ব্যাটসম্যানের বিদায়ের পর শঙ্কা জাগে ফলোঅনের। তবে দৃঢ়তার সঙ্গে সামাল দেন লিটন-মিরাজ।

প্রথম ইনিংসে সফরকারীরা সংগ্রহ করে ৪০৯ রান। ১১৩ রানের লিড নিয়ে দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমেছে সফরকারী উইন্ডিজ।

শর্টলিংকঃ